শিরোনাম

6/recent/ticker-posts

Header Ads Widget

ভেতো বাঙালির কাছে সুখবর নিয়ে এসেছেন যুক্তরাষ্ট্রের বিজ্ঞানী ডাক্তার উইলিয়াম ডেভিস

ভেতো বাঙালির কাছে সুখবর নিয়ে এসেছেন যুক্তরাষ্ট্রের বিজ্ঞানী ডাক্তার উইলিয়াম ডেভিস |



দীর্ঘ ২৫ বছরের গবেষণা শেষে উইট বেলী নামক বইয়ে তিনি লিখেছেন গমের আটার চেয়ে ভাত ভালো, এছাড়া গমের দানায় থাকা এমাইলোপেক্টিন নামক যা গমের ভিলেন বলছেন পুষ্টিবিজ্ঞানীরাকেননা এই উপাদানটি মানুষের স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর | সকাল-দুপুর কিংবা রাতের বেলায় প্রাইসই বাঙালির পাশে থাকে ভাত, ভাতে  কতটুকু কি আছে কিংবা শরীরের জন্য কতটা উপকারী সেটা না জানলেও বিভিন্ন বয়সের মানুষের পাতে থাকে ভাই,  তাইতো ভেতো বাঙালি।

গেল শতকের মাঝামাঝি খাবারে যুক্ত হয় গমের রুটি যা অন্যান্য দেশে জনপ্রিয় হয়ে উঠলেও বাংলাদেশে এখন মাঝে মাঝে বাঙালির পাতে যুক্ত হয় নতুন খাবার গমের রুটি যা এখন জনপ্রিয় হলেও এখনো বাংলাদেশে হতে পারেনি ভাতের বিকল্প।  অনেকে ওজন কমাতে সকাল দুপুর কিংবা রাত দিন প্রায় স্বাভাবিক খাবার হিসেবে রয়েছে ভাত। তবে মাঝে মাঝে বাঙালির পাতে যুক্ত হয় নতুন খাবার গমের রুটি যা সারা বিশ্বে জনপ্রিয় হলেও বাংলাদেশি হতে পারেনি ভাতের বিকল্প ওজন কমাতে কিংবা ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণের খাবার।



অনেকেই গমের রুটি ওজন কমাতে খাবার মেনুতে যোগ করলেও মিলেনি ভালো ফলাফল। 

এমন কথা বলেছেন যুক্তরাষ্ট্রের চিকিৎসক উইলিয়ামস ডেভিস তিনি বলেছেন তার লেখা ওয়েট বেলী বইটিতে গমের রুটি সাস্তের জন্য সুখীকর নয়। চলতি বছরে এই বইটি যুক্তরাষ্ট্রের বেস্ট সেলার তালিকায় নাম লেখায়। 

আমাদের দেশের কৃষিবিদ . ময়নুল ইসলাম বলেন গমের মধ্যে যে এমাইলোপেক্টিন আছে তা রক্তের এল ডি এল এর মাত্রা বহুগুন বাড়িয়ে তোলে। তিনি বলেন আমারা যদি গমের আটার খাবার কমিয়ে খাই তাহলে রক্তের এলডিএল ৮০% থেকে ৯০% নামিয়ে আনা সম্ভব যা উচ্চ রক্তচাপ এবং ডায়বেটিস  নিয়ন্ত্রণে অনেক কায্যকরি।

 


গমের মধ্যে যে গুলোটিন আছে যা সিলিয়ার ডিজিস আছে তারা কোন ভাবেই গমের খাবার খাওয়া সম্ভাব না।  আর যাদের সিলিয়ার ডিজিস নাই তারাও নন সিলিয়ার ডিজিস আকান্ত হতে পারে। তার দাবি গমের রুটির চেয়ে ভাত ভালো, তবে এক্ষেত্রে খেতে হবে সিদ্ধকরা পলিস না করা চাল। যা উচ্চরক্তচাপ ডায়বেটিস কমাতে সহায়তা করে।  দেশে ভাতের চাহিদা মেটাতে দেশে বছরে চালের উৎপাদন . কোটি মেট্টিক টন চাল। রুটির চাহিদার বিপরীতে ৬০ লাখ টন গমের চাহিদার বিপরীতে উৎপাদন মাত্র ১০ লাখ টন। ভাত ভালো  না রুটি ভালো এমন গবেষণায় ধোঁয়াশা রেখেছে বিজ্ঞানীরা। তবে গবেষণার জন্য নয় আদিকাল থেকেই বাংলীর কাছে ভাত মানেই তৃপ্তির ঢেঁকুর।

 

 

সুত্র চ্যানেল ২৪ নিউজ,

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ